দলীয় পদ ছাড়লেন সাই ইং-ওয়ে।


তরফ বার্তা প্রকাশের সময় : নভেম্বর ২৭, ২০২২, ৯:১৫ অপরাহ্ন /
দলীয় পদ ছাড়লেন সাই ইং-ওয়ে।
অনলাইন ডেক্স

তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন স্থানীয় নির্বাচনে হেরে গিয়ে তার দল ক্ষমতাসীন ডেমোক্রেটিক প্রগ্রেসিভ পার্টির (ডিপিপি) প্রধানের দায়িত্ব থেকে পদত্যাগ করেছেন। পদত্যাগের এ প্রস্তাব দেন তিনি গত শনিবার ( ২৬ নভেম্বর)।

শনিবার রাজধানী তাইপেসহ বেশ কয়েকটি আসনে জিতেছে বিরোধীদল কুওমিনতাং (কেএমটি)। চীনপন্থি কেএমটি, রক্ষণশীল ব্যবসায়িক চ্যাম্পিয়নদের একটি দল।

অন্যান্য দেশেরও তাইওয়ানের এই নির্বাচনের প্রতি আগ্রহ রয়েছে। চীন ও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে তাইওয়ানকে নিয়ে  দ্বন্দ্ব বিরাজমান।

প্রেসিডেন্ট সাই এই নির্বাচনকে গণতান্ত্রিক ভোট হিসেবে নির্ধারণ করেছিলেন চীনের সঙ্গে ক্রমবর্ধমান উত্তেজনার মধ্যে। নির্বাচনের ফলাফল প্রত্যাশিত ছিল না বলে তিনি বলেন, আমার সব দায়িত্ব কাঁধে নেওয়া উচিত এবং আমি অবিলম্বে ডিপিপি চেয়ারম্যান পদ থেকে পদত্যাগ করছি।’

১৩টি কাউন্টি ও ৯টি শহরে মেয়র, সিটি কাউন্সিল সদস্য এবং অন্যান্য স্থানীয় নেতা নির্বাচনে ভোট দেয়। ভোটারদের সর্বনিম্ন বয়স ২০ থেকে ১৮ বছর।

চীনবিরোধী নেত্রী হিসেবে সাই ইং ওয়েন পরিচিত। বেইজিংয়ের ‘আধিপত্যের’ বিরুদ্ধে সোচ্চার তিনি গত কয়েক বছর ধরে। ডেমোক্রেটিক প্রগ্রেসিভ পার্টির (ডিপিপি) নেত্রী সাই ইং ওয়েন এর আগে ২০১৬ সালে তাইওয়ানের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো নারী প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন।

চীন প্রয়োজনে শক্তিপ্রয়োগেরও হুমকি দিয়ে আসছে দেশটিকে বেইজিংয়ের অধীনে নিয়ে আসতে। দ্বীপ রাষ্ট্র তাইওয়ানকে ১৯৪৯ সাল থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাওয়া একটি প্রদেশ বলে মনে করে চীন।

অপরদিকে, যুক্তরাষ্ট্রের কঠোর হুঁশিয়ারি রয়েছে তাইওয়ানের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করা নিয়ে।